দেশ

গরুর খেয়াল রাখতে দলীয় সাংসদদের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর

  • 706
  •  
  •  
  •  
    706
    Shares

বিবি নিউজ ডেস্কঃ গরুর খেয়াল রাখতে দলীয় সাংসদদের নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

সংসদ চললে ফি-হপ্তায় মঙ্গলবার বিজেপির সাংসদদের সঙ্গে বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী। মোদী বলেন, মানুষের পাশাপাশি পশুদের দিকেও খেয়াল রাখতে হবে দলের সাংসদদের। কারণ, বছরের এই সময়েই পশুরা বেশি অসুস্থ হয়ে পড়ে।

তবে বিজেপির এক মন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শুধু গরু নন, মুরগির কথাও বলেছেন। পশু-পাখিরা অসুস্থ হয়ে পড়লে কৃষকদের অনেক ক্ষতি হয়! প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, না-ই বা হল এই পশু-পাখিরা ভোটার। কিন্তু তাদেরও খেয়াল রাখতে হবে।নিজেদের কেন্দ্রে মানবিক বিষয়ে নিরন্তর কাজ করতে হবে সাংসদদের। ২০২৫ সাল পর্যন্ত সরকার সামাজিক ভাবে প্রাসঙ্গিক বিষয়ে আরও বেশি জোর দেবে। যক্ষ্মা, কুষ্ঠ বা অন্যান্য প্রতিবন্ধকতা ঠেকাতে সাংসদদের ‘মিশন-মোড’-এ কাজ করতে বলেছেন তিনি।

বিজেপির এক সূত্রের মতে, প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্যের পিছনে সঙ্ঘ শিবিরেরও চাপ আছে। গত কয়েক দিন ধরে রাজ্যে রাজ্যে গরুর মৃত্যু হচ্ছে।

‘রাম-নগরী’ অযোধ্যাতেই ৫০ টির বেশি গরুর মৃত্যু হয়েছে। বিজেপি রাজনৈতিক ভাবে ‘গোমাতা, গোমাতা’ করে লাফালেও বাস্তবে গরুদের দুর্দশায় বিজেপি সরকারের উপর চটে রয়েছেন সাধু-সন্তরা।

অযোধ্যায় রামের অস্থায়ী পুজোস্থলের মহন্ত সত্যেন্দ্র দাস বলেছেন, বিধায়ক, সাংসদ ও অফিসারেরা গোশালার অবস্থা জানেন। তা সত্ত্বেও গরুকে মৃত্যুর পথে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে।

তবে বিজেপি নেতাদের মতে, প্রধানমন্ত্রী শুধু সাম্প্রতিক সঙ্কট মোকাবিলায় সাংসদদের শামিল করতে চাইছেন না। ভোটে জেতার পর সাংসদেরা পাঁচ বছর নির্বাচনী কেন্দ্রে মুখ দেখান না বলে অভিযোগ আসে। সে কারণেও এই দাওয়াই। এতে সাংসদদের জনপ্রিয়তা বজায় থাকবে, আবার সঙ্ঘও খুশি হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *