Uncategorized

যারা তাবরেজ আনসারীকে হত্যা করেছে তারা সন্ত্রাসী: আসাদউদ্দিন ওয়াইসি

  •  
  •  
  •  
  •  

বিবি নিউজ ডিজিটাল ডেস্কঃমজিলিশ-ই-ইত্তেহাদুল মুসলেমিন (মিম) সুপ্রিমো ব্যারিস্টার আসাদউদ্দিন ওয়াইসি বলেছেন, যারা তাবরেজ আনসারীকে হত্যা করেছে তারা সন্ত্রাসী। গণপিটুনিজনিত বিভিন্ন ঘটনায় মুসলিম যুবকরা নিহত হওয়ার প্রতিবাদে গতকাল (শুক্রবার) হায়দ্রাবাদে এক বিক্ষোভ সমাবেশে ভাষণ দেয়ার সময় তিনি ওই মন্তব্য করেন।

সম্প্রতি বিজেপিশাসিত ঝাড়খণ্ডে চোর সন্দেহে তাবরেজ আনসারী (২৪) নামে এক মুসলিম যুবককে পিটিয়ে হত্যা করেছে উগ্রহিন্দুত্ববাদী জনতা। তারা তাবরেজ আনসারীকে জোর করে ‘জয় শ্রীরাম’ ও ‘জয় হনুমান’ ধ্বনি দিতে বাধ্য করে। ওই ঘটনায় দেশে তীব্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হওয়ায় দেশের বিভিন্নস্থানে প্রতিবাদ, বিক্ষোভ হচ্ছে।

শুক্রবার হায়দ্রাবাদের প্রতিবাদ সমাবেশ থেকে ‘মিম’ প্রধান ওয়াইসি বলেন, ‘এসব জালিমদের থেকে ভয় পাবেন না। ওরা কাপুরুষের ফৌজ (বাহিনী) যারা ২৫/৩০ জন একসঙ্গে এক নিরপরাধকে হত্যা করছে। ওরা কাপুরুষ!’ উগ্রহিন্দুত্ববাদীদের তীক্ষ্ণ কটাক্ষ করে ওয়াইসি বলেন, ‘যারা তাবরেজ আনসারিকে হত্যা করেছে তারা ‘গডসে’র অবৈধ সন্তান। যারা তাবরেজ আনসারীকে হত্যা করেছে তারা ভারতের ‘গাদ্দার’ (বিশ্বাসঘাতক), যারা তাবরেজ আনসারীকে হত্যা করেছে তারা সন্ত্রাসী। ওদের এবং আইএসআইএসের মধ্যে কোনও পার্থক্য নেই।’

প্রধানমন্ত্রীর নাম না করে আসাদউদ্দিন ওয়াইসি গতকাল শুক্রবার বলেন, ‘উজিরে আজমের দায়িত্ব হল, প্রত্যেক ভারতবাসীকে রক্ষা করা। কারণ, উনি প্রত্যেক ভারতবাসীর উজিরে আজম।’

এদিকে, গতকাল গণপিটুনির ঘটনার প্রতিবাদে গুজরাটের সুরাটে বিক্ষোভ-মিছিল হয়। এসময় নানপুরা এলাকায় পুলিশ ওই মিছিল আটকানোর চেষ্টা করলে জনতা মারমুখী হয়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে পাথর নিক্ষেপ করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশকে এসময় কাঁদানে গ্যাসের শেল ফাটাতে হয়। উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে ৪/৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়। পরে ওই এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *